খোকসার মুখোশধারী ভদ্রলোক

নাজিম রেজা লালুর বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগে মামলা!

অথর
জে এন এস নিউজ ডেক্স :   কুষ্টিয়া
প্রকাশিত :২৬ আগস্ট ২০২১, ৯:৪৪ পূর্বাহ্ণ | পঠিত : 324 বার
নাজিম রেজা লালুর বিরুদ্ধে যৌন হয়রানির অভিযোগে মামলা!

ষ্টাফ রিপোর্টার : ভদ্রলোকের নাম এস এম নাজিম রেজা লালু। পেশায় ছিলেন ডিপ্লোমা প্রকৌশলী। ঘুষ দূর্নীতি করে কামিয়েছে কোটি কোটি টাকা। খোকসা বাজারের মধ্যে গড়ে তুলেছে অট্রালিকা। এখন লোলুপ দৃষ্টি নাতনী বয়সী নারী ও বাসার কাজের মেয়েদের প্রতি। ইতোমধ্যে এক নাতনীকে যৌন হয়রানির অভিযোগে কুষ্টিয়ার নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইবুনালে মামলা দায়ের হয়েছে, যার নম্বর নারী ও শিশু ৯৭/২১।
মুখোশধারী ভদ্রলোক
ঘটনার বিবরণে জানা যায়, বাদিনী পড়াশুনার উদ্দেশ্যে মালয়েশিয়া অবস্থান করায় তার কন্যাকে রেখে যান বাদিনীর বাবা-মায়ের কাছে। বাদিনী প্রবাসে থাকার সুযোগে মুখোশধারী এ ভদ্রলোক একই পরিবারের সদস্য হওয়ায় বাদীনির কন্যাকে বিভিন্ন সময়ে কু-প্রস্তাবের মাধ্যমে যৌন কামনা চরিতার্থ করার উদ্দেশ্যে উত্যক্ত করিয়া আসিতে থাকে। আসামী প্রায়ই বাদিনীর কন্যাকে তার রুমে ডাকত এবং শরীরের বিভিন্ন স্থানে যৌন পীড়নের উদ্দেশ্যে স্পর্শ করিত। বাদীনির কন্যা আসামীর কু-প্রস্তাবে রাজী না হইলে আসামী অবৈধভাবে তাহার যৌন কামনা চরিতার্থ করিবার জন্য গত ইং ০৭/৭/২০২১ তারিখে দুপুর ১২.০০ টার দিকে বাদিনীর কন্যা পুকুর থেকে গোসল করিয়া ভেজা কাপড়ে আসার পথে আসামী পূর্ব থেকে উৎ পেতে থাকিয়া একলা পাইয়া বাদিনীর কন্যাকে জাপটাইয়া ধরে এবং খারাপ প্রস্তাব দেয়। বাদীনির কন্যা আসামীর খারাপ প্রস্তাবে রাজী না হইলে আসামী তাহার হাতে থাকা অস্ত্রের ভয় দেখাইয়া বাদীনির কন্যাকে খুন করিয়া ফেলিবার হুমকি দেয়। বাদীনির কন্যা আসামীর অস্ত্রের ভয়ে কিংকর্তব্যবিমুঢ় হয়ে কিছুক্ষন চুপ করিয়া থাকিলে তৎক্ষনাৎ আসামী বাদীনির কন্যার পরনের পায়জামা খুলিয়া ফেলিতে চেষ্টা করে এবং শরীরের বিভিন্ন স্পর্শ কাতর অঙ্গে স্পর্শ করায় বাদীনির কন্যা শোর চিৎকার করিতে থাকে। তখন আসামী বলে যে, শোর চিৎকার করিলে হাসুয়া দ্বারা কোপ মারিয়া গলা কাটিয়া খুন করিয়া ফেলিব। আসামী বাদীনির কন্যাকে পরনের পায়জামা খুলিয়া ফেলিলে বাদীনির কন্যা মৃত্যুর ভয় না করিয়া উচ্চস্বরে শোর চিৎকার করিতে থাকিলে সাক্ষীগন ঘটনাস্থলে চলিয়া আসিবা মাত্রই আসামী বাদিনীর কন্যাকে ছাড়িয়া দিয়া চলিয়া যায়। শুধু বাদিনীর কন্যায় নয়, গান শেখানোর নাম করে নাতী বয়সী অনেক নারীকে এভাবে যৌন স্পর্শ করার অভিযোগ রয়েছে এস এম নাজিম রেজা লালুর বিরুদ্ধে। বাসার অনেক কাজের মেয়েও তার দ্বারা যৌন হয়রানির শিকার হয়ে বাসা ত্যাগ করেছে। তিনি প্রভাবশালী হওয়ায় ভয়ে কেউ মুখ খুলতে সাহস পায় না। এলাকাবাসী তার এহেন অপকর্মের বিচার দাবী করেছে।

সংবাদটি শেয়ার করুন
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

শেয়ার করে  সঙ্গে থাকুন, আপনার অশুভ মতামতের জন্য সম্পাদক দায়ী নয়।


Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

two × four =


আরও পড়ুন